thereport24.com
ঢাকা, শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৬ আশ্বিন ১৪২৫,  ১০ মহররম ১৪৪০

স্বাগত ১৪২৩, শুভ নববর্ষ

২০১৬ এপ্রিল ১৪ ০৬:১৬:০৬
স্বাগত ১৪২৩, শুভ নববর্ষ

দ্য রিপোর্ট প্রতিবেদক : সময়ের পরিক্রমায় আরেকটি বছরকে বরণ করে নিতে প্রস্তুত সারাদেশ। বুধবার নতুন সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে শুরু হয় নতুন বাংলা বছর ১৪২৩। জাতি-ধর্ম-বর্ণ-নারী-পুরুষ নির্বিশেষে পুরনো বছরকে বিদায় জানিয়ে স্বাগত জানাবে নতুন বছরকে। আবহমান বাঙলার বৈচিত্র্যময় গানে-রঙে মাতবে উৎসবে।

প্রতিবছরের মতো এবারও ছায়ানট ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদসহ রাজধানী ঢাকার মোড়ে মোড়ে উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। বর্ষবরণের সবচেয়ে বড় আয়োজন এবারও থাকবে ছায়ানটের আয়োজনে রমনা বটমূলে। এবার মানবতার বাণী উচ্চারিত হবে ছায়ানটের আয়োজনে। বরাবরের মতো পয়লা বৈশাখে ভোর সোয়া ছয়টায় ভোরের রাগালাপ দিয়ে সূচনা হবে এ আয়োজনের। দুই ঘণ্টার কিছু বেশি ব্যাপ্তিকালের অনুষ্ঠান শেষ হবে সকাল সাড়ে ৮টার মধ্যে। ১৫টি একক গান, ১২টি সম্মেলক গান, ৩টি আবৃত্তি ও পাঠ দিয়ে সাজানো অনুষ্ঠানের সমাপনী হবে সনজীদা খাতুনের শুভেচ্ছা কথনের মাধ্যমে। অংশ নেবেন প্রায় দেড়শ জন শিল্পী।

রবি ঠাকুরের গানের পংক্তি ‘অন্তর মম বিকশিত করো অন্তরতর হে’ স্লোগানে পয়লা বৈশাখ ১৪২৩ এর মঙ্গল শোভাযাত্রা বের হবে সকাল ৯টায় চারুকলা থেকে। বাঁশের চটা বেঁধে তৈরি করা বাঘ, হাঁস, বিড়াল, শখের হাড়ি, শিশু হরিণ, পেঁচা, কাগুজে বাঘ ইত্যাদি অনুষঙ্গগুলো বরাবরের মতো থাকবে এবারও। তবে ডিএমপি থেকে এবার মঙ্গল শোভাযাত্রায় মুখোশ ব্যবহার নিষেধ করা হয়েছে। পাশাপাশি বিকট আওয়াজের বিদেশি সংস্কৃতির পরিচায়ক ভুভুজেলা বাঁশি নিষিদ্ধ করা হয়েছে। পাশাপাশি বিকেল ৫টার পর উন্মুক্ত স্থানে সাংস্কৃতিক আয়োজন করা যাবে না।

শিশু পার্কের প্রবেশদ্বারে নারকেলবিথী চত্বরে গত ৩৩ বছরের ঐতিহ্য নিয়ে পয়লা বৈশাখে অনুষ্ঠান আয়োজন করে আসছে ঋষিজ শিল্পীগোষ্ঠী। এবারও তার ব্যতিক্রম হচ্ছে না। পয়লা বৈশাখের দিন সকাল পৌনে ৮টায় শুরু হবে ঋষিজের বৈশাখী আয়োজন। এবার বর্ষবরণ অনুষ্ঠানটি উদ্বোধন করবেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন। এতে উপস্থিত থাকবেন গণসঙ্গীত শিল্পী ফকির আলমগীর। এবারের আয়োজনটি সদ্যপ্রয়াত কবি রফিক আজাদ ও নির্মাতা খালিদ মাহমুদ মিঠুকে উৎসর্গ করা হবে। গান, নাচসহ নানা আয়োজন দিয়ে সাজানো হবে অনুষ্ঠান।

নববর্ষ উপলক্ষে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির আয়োজনে বিকেল ৫টা থেকে একাডেমির মাঠের নন্দনমঞ্চে অনুষ্ঠিত হবে নববর্ষের অনুষ্ঠান। এতে দেশের খ্যাতনামা সব শিল্পীরা সঙ্গীত, নৃত্য আবৃত্তি পরিবেশন করবেন।

নববর্ষ উপলক্ষে দিনব্যাপী নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে বাংলা একাডেমি। সকাল ৭টা থেকে একাডেমির নজরুল মঞ্চসহ বিভিন্ন অডিটোরিয়ামে একক বক্তৃতা, কবিতা আবৃত্তি, সঙ্গীত অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। এছাড়াও থাকছে বইয়ের আড়ং। বিকেল চারটায় বিসিক ও বাংলা একাডেমির যৌথ উদ্যোগে ১০দিনব্যাপী বৈশাখী মেলার উদ্বোধন করা হবে। বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশন, উদীচী শিল্পীগোষ্ঠী, বাংলাদেশ শিশু একাডেমি, বেঙ্গল ফাউন্ডেশনসহ বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন নানা আয়োজনে নতুন বছরেকে বরণ করবে।

এ ছাড়াও রমনার বটমূল থেকে সোহরাওয়ার্দী উদ্যান, চারুকলা, টিএসসি, ছবির হাট, ধানমন্ডির রবীন্দ্রসরোবরসহ রাজধানীর সর্বত্রই কাকডাকা ভোর থেকে রাত পর্যন্ত বৈশাখী উন্মাদনায় হারিয়ে যাবে শিশু-কিশোর, তরুণ-তরুণী, যুবক-যুবতীসহ সব শ্রেণী-পেশার ও সব ধর্মের মানুষ।

শহরের বিভিন্ন এলাকার মাঠগুলোতে বসবে বৈশাখী মেলা। শিশু পার্কসহ নানা বিনোদনকেন্দ্র এবং ফুড কোটগুলোতে থাকবে মানুষের চাপ। যারা উত্তরা, বিমানবন্দর, বাড্ডা বা রামপুরা এলাকায় বসবাস করেন তাদের এবং তাদের পরিবারের জন্য এখন এক নির্মল আনন্দের মহাআকর্ষণ হিসেবে ধরা দিয়েছে যমুনা ফিউচার পার্ক।

পয়লা বৈশাখে বনানী গুলশানের বিভিন্ন ফুড কোর্টগুলোর পাশাপাশি হোটেল সোনারগাঁও, রেডিসন, ওয়েস্টিন, ঢাকা রিজেন্সিসহ হোটেল-রেস্টুরেন্টগুলোর উদ্যোগেও উদযাপিত হবে নতুন বছরের উৎসব। ঢাকা ক্লাব, গুলশান ক্লাব, উত্তরা ক্লাবের উদ্যোগে পয়লা বৈশাখ উদযাপিত হবে। ঢাকার অদূরে থিমপার্কগুলোতেও থাকছে নানা বৈশাখী আয়োজন।

বৈশাখের এই দিনে সবাই পরিবার পরিজন নিয়ে মেতে উঠবে নতুন বছরকে বরণ করার আনন্দে। শুভ নববর্ষ।

(দ্য রিপোর্ট/এমএ/এপি/এপ্রিল ১৩, ২০১৬)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

জাতীয় এর সর্বশেষ খবর

জাতীয় - এর সব খবর



রে