thereport24.com
ঢাকা, রবিবার, ১ নভেম্বর ২০২০, ১৬ কার্তিক ১৪২৭,  ১৫ রবিউল আউয়াল 1442

পুনর্বাসন না করে হকার উচ্ছেদ বন্ধের দাবি

২০১৬ ডিসেম্বর ২০ ২০:২৬:০৮
পুনর্বাসন না করে হকার উচ্ছেদ বন্ধের দাবি

দ্য রিপোর্ট প্রতিবেদক : পুনর্বাসন বা বিকল্প কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা না করে হকার উচ্ছেদ বন্ধসহ ১১ দফা দাবি বাস্তবায়নের আহ্বান জানিয়েছে বাংলাদেশ ছিন্নমূল হকার্স সমিতি।

মঙ্গলবার (২০ ডিসেম্বর) জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে ‘হকার ব্যবস্থাপনা/আমাদের প্রস্তাব’ শীর্ষক এক মতবিনিময় সভার লিখিত বক্তব্যে এ দাবি তুলে ধরেছেন সংগঠনটির সভাপতি কামাল সিদ্দিকী। বাংলাদেশ ছিন্নমূল হকার্স সমিতি ও বাংলাদেশ ফ্রি ট্রেড ইউনিয়ন কংগ্রেস (বিএফটিইউসি) এ মতবিনিময় সভার আয়োজন করে।

কামাল সিদ্দিকী বলেছেন, ‘জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে নদী ভাঙ্গন, জলোচ্ছ্বাস, ঘূর্ণিঝড়, প্লাবনে সহায়-সম্বলহীন মানুষ এবং দেশের শহর এলাকায় উৎপাদনহীন কলকারখানার শ্রমিক ছাঁটাই, চাকুরিচ্যুতি, বিদেশ থেকে ফেরত আসা শ্রমিক ও কাজে অক্ষম হয়ে পড়া নিরীহ মানুষগুলো নাম লেখায় রাষ্ট্রের বেকারের খাতায়। রাষ্ট্রের মৌলিক অধিকার পাওয়ার দাবিদার এই মানুষগুলো বেঁচে থাকার কোনো পথ না পেয়ে নিজে ও পরিবারের সদস্যদের মুখে দুমুঠো অন্ন যোগাতে অল্প পুঁজির এই হকারি পেশা বেছে নেন। হকারি পেশা অত্যন্ত কষ্টের এবং অমানবিক। তবুও তারা আঁকড়ে থাকে এই অমানবিক হকারি পেশাকে।’

তিনি আরো বলেছেন, ‘হকাররা আশা করেছিল বিকল্প কর্মসংস্থান ও পুনর্বাসনের ব্যবস্থা করবে সরকারসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। তারা এও আশা করেছিল সিটি করপোরেশনের মেয়ররা হকারদের ওপর অত্যাচার বন্ধ করে তাদের পুনর্বাসন করবে। কিন্তু অত্যন্ত দুঃখের বিষয়, মেয়ররা পুনর্বাসন না করে হকারদের উচ্ছেদ করছেন। এতে পুঁজি শূণ্যের কোঠায় নেমে হকারদের জীবন ও পেশা অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে।’

কামাল সিদ্দিকী বলেছেন, ‘মেয়রদের ঘোষণা বাস্তবায়ন হলে শুধু ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগরীর ৪ লাখ হকার ও তাদের সঙ্গে জড়িত আরও ৪ লাখ লোক বেকার হয়ে পড়বে। ইতোমধ্যে বাড়িওয়ালারা হকারদের ঘর ভাড়া দিচ্ছে না, নিত্যদিনের জীবন বাঁচানোর খরচ জোগাতে পারছে না হকাররা, ছেলে মেয়েদের স্কুলে ভর্তি করতে পারছে না তারা, অর্ধাহারে অনাহারে জীবন কাটছে তাদের।’

১১দফা দাবি তুলে ধরে কামাল সিদ্দিকী বলেছেন, ‘জাতীয় হকার নীতিমালা ও হকারদের স্বার্থ সংরক্ষণে এবং তাদের নিয়ন্ত্রণে রাখার প্রয়োজনীয় আইন তৈরি করে হকার সমস্যার সমাধান করতে হবে। স্বল্প আয়ের লোকেদের আরও সস্তায় পণ্য কেনাকাটা ও বাজার নিয়ন্ত্রণে রাখতে ফুটপাতের অবৈধ চাঁদাবাজি সরকারিভাবে বন্ধের ঘোষণা দিতে হবে। হকারদের রাজনৈতিক ক্ষেত্রে ব্যবহার, দলীয়করণ বন্ধ করে তাদেরকে রাজনৈতিক প্রভাবমুক্ত রাখতে হবে।’

মতবিনিময় সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন শ্রমিক নেতা আবুল হুসাইন, ছিন্নমূল হকার্স সমিতির সহ-সভাপতি হারুন অর রশিদ, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম মোল্যা, মহিলা হকার শ্রমিক নেত্রী সবুরা খাতুন ও নাহিদুর রহমান পুতুল প্রমুখ।

(দ্য রিপোর্ট/এমএম/জেডটি/ডিসেম্বর ২০, ২০১৬)

পাঠকের মতামত:

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

M

M

SMS Alert

এর সর্বশেষ খবর

- এর সব খবর