thereport24.com
ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ আগস্ট ২০১৭, ৭ ভাদ্র ১৪২৪,  ২৮ নভেম্বর ১৪৩৮

টেলিটকের নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণে নোকিয়া-অ্যালকাটেল

২০১৭ জানুয়ারি ১১ ১৬:৩১:৫৫
টেলিটকের নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণে নোকিয়া-অ্যালকাটেল

দ্য রিপোর্ট প্রতিবেদক : নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণে রাষ্ট্রায়ত্ব টেলিকম অপারেটর টেলিটকের সঙ্গে নোকিয়া এবং অ্যালকাটেলের চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।

সচিবালয়ে বুধবার (১১ জানুয়ারি) বিদেশি টেলিযোগাযোগ অবকাঠামো নির্মাণকারী এ দুটি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি হয়। এ সময় ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম উপস্থিত ছিলেন।

দুটি চুক্তিতে টেলিটকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) গিয়াস উদ্দিন আহমেদ এবং নকিয়ার দক্ষিণ এশিয়ার মার্কেট ইউনিটের হেড নিকোলাস বাওভিরট ও অ্যালকাটেল-লুসেন্ট-সাংহাই বেল’র কান্ট্রি হেড রোল্যান্ড রেনিয়ার স্বাক্ষর করেন।

নোকিয়ার সঙ্গে চুক্তির (প্যাকেজ-২) আওতায় বরিশাল, খুলনা ও সিলেট বিভাগের বিভিন্ন এলাকায় মোবাইল বিটিএস (বেজ ট্রানসিভার স্টেশন) বা নুড-বি (যোগাযোগ প্রযুক্তি) ও আনুষঙ্গিক যন্ত্রপাতি বসানোর মাধ্যমে টেলিটকের টু-জি, থ্রি-জি নেটওয়ার্ক শক্তিশালী হবে। এক্ষেত্রে ৮৯৫টি টু-জি বিটিএস ও থ্রি-জির জন্য ৫৫২টি সাইটে সর্বশেষ ভার্সনের নেটওয়ার্ক স্থাপন করা হবে।

অ্যালকাটেল-লুসেন্ট-সাংহাই বেল এর সঙ্গে চুক্তিতে (প্যাকেজ-৩) ঢাকার উত্তরা, গাজীপুর, সাভার, মানিকগঞ্জ, ময়মনসিংহ, বগুড়া, রাজশাহী বিভাগের বিভিন্ন এলাকায় টেলিটকের নেটওয়ার্ক শক্তিশালী করা হবে।

এজন্য ৪২৫টি সাইটে টুজি নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণ এবং ৩৯০টি সাইটে সর্বশেষ ভার্সনের থ্রিজি নেটওয়ার্ক স্থাপন করা হবে।

টেলিটকের এমডি বলেন, ‘প্যাকেজ-২ এর ব্যয় ১৮ দশমিক ৪ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ও প্যাকেজ-২ এর ব্যয় ১৪ দশমিক ৭ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।’

অনুষ্ঠানে ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী বলেন, “সারা দেশে ‘মর্ডানাইজেশন অ্যান্ড এক্সপ্যানশন অফ টেলিটকস টুজি/থ্রিজি নেটওয়ার্ক আপ টু রুরাল এরিয়াস প্রোজেক্ট’ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় সারা দেশে টেলিটকের নেটওয়ার্ক গ্রাম পর্যায় পর্যন্ত সম্প্রসারণ ও সুসংসহত করার লক্ষ্যে মোট এক হাজার ৭০০টি নতুন সাইটে টুজি বিটিএস, ৩০৫টি পুরাতন বিটিএস প্রতিস্থাপন, এক হাজার ৫০০টি সাইটে থ্রিজি নোডবি-সহ আনুসঙ্গিক নেটওয়ার্ক ও অবকাঠামো নির্মাণ করা হচ্ছে। এসব কাজ তিনটি প্যাকেজ তিন ভেন্ডরের মাধ্যমে বাস্তবায়ন করা হবে।”

তিনি আরো বলেন, ‘তিনটি প্যাকেজের মধ্যে প্যাকেজ-১ এর ওপর গত বছরের ২৭ জুন হুয়াউয়ে টেকনোলজিসের সঙ্গে চুক্তি হয়েছে, যার মাধ্যমে ঢাকা, চট্টগ্রাম ও রংপুর বিভাগের বিভিণ্ন এলাকায় ৬৮৫টি টুজি বিটিএস ও ৫৫৯টি নোটবি বসানোর কাজ চলমান রয়েছে।’

টেলিটকের গ্রাহক কমছে- এ বিষয়ে তারানা হালিমের দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে তিনি বলেন, ‘২০১৫ সালের ডিসেম্বর বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে সিম নিবন্ধন শুরুর পরে টেলিটকের গ্রাহক সংখ্যা কমলেও ছয় লাখ বেড়ে এখন ৩৮ লাখে দাঁড়িয়েছে।’

অবৈধ ভিওআইপি অভিযানে টেলিটকের সিমও পাওয়া যাচ্ছে- এ বিষয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘অপারেটরের নাম না দেখে বিটিআরসিকে অভিযান পরিচালনার কথা বলা হয়েছে। টেলিটককেও জানানোর দরকার নাই। কোন অপারেটর, কত বিগ অপারেটর, স্মল অপারেটর কিচ্ছু দেখার দরকার নেই।’

(দ্য রিপোর্ট/আরএমএম/জেডটি/জানুয়ারি ১১, ২০১৭)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

জাতীয় এর সর্বশেষ খবর

জাতীয় - এর সব খবর



রে