thereport24.com
ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৮ মার্চ ২০১৭, ১৪ চৈত্র ১৪২৩,  ২৮ জমাদিউস সানি ১৪৩৮

২১ শে ফেব্রুয়ারি স্পেনে ‘অশ্বারোহী তাসমিনা’

২০১৭ ফেব্রুয়ারি ১৭ ১৮:০৩:২৫
২১ শে ফেব্রুয়ারি স্পেনে ‘অশ্বারোহী তাসমিনা’

দ্য রিপোর্ট প্রতিবেদক : স্বল্পদৈর্ঘ্য প্রামাণ্যচিত্র ‘অশ্বারোহী তাসমিনা’ আগামী ২১শে ফেব্রুয়ারি স্পেনের ভ্যালেনসিয়ায় অনুষ্ঠিতব্য এমআইসিই- চলচ্চিত্র উৎসবে প্রদর্শিত হবে। প্রামাণ্যচিত্রটির পরিচালক ফরিদুর রহমান এবং প্রযোজক মাহবুবা বেগম হেনা আগামী ১৯ থেকে ২৬ শে ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত অনুষ্ঠেয় এই উৎসবে আমন্ত্রিত অতিথি হিসাবে যোগ দিতে গত বুধবার স্পেন গিয়েছেন।

পরিচালকের অনুরোধে প্রামাণ্যচিত্রটি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস, বাঙালি জাতির গৌরবের দিনে প্রদর্শন সূচিতে রাখা হয়েছে। ‘অশ্বারোহী তাসমিনা’র প্রযোজক মাহবুবা বেগম হেনা উৎসবে ভিন্ন একটি বিভাগে জুরি হিসাবে দায়িত্ব পালন করবেন।

প্রামাণ্যচিত্র ‘অশ্বারোহী তাসমিনা’ ইতোপূর্বে বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি লাভ করেছে। এর মধ্যে রয়েছে শ্রেষ্ঠ স্বল্পদৈর্ঘ্য প্রামাণ্যচিত্র: ওমেনস ইন্টারন্যাশনাল এন্টারটেইনমেন্ট ফিল্ম ফেস্টিভাল। ৫১তম প্রিজনেস ইন্টারন্যাশনাল চিল্ড্রেন্স ফিল্ম এ্যান্ড টেলিভিশন ফেস্টিভ্যাল থিম পুরস্কার এবং জেন্ডার ইক্যুইটি পুরস্কারের জন্য মনোনয়ন।

অফিসিয়াল সিলেকশান ও অনারেবল মেনশন: এলএ সিনে ফেস্ট, লস এ্যাঞ্জেলস, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। ট্রান্সসিলভানিয়া শটসর্ ফিল্ম ফেস্টিভাল, টার্গুমরেস, রোমানিয়া। কন্ট্রাভিশন ফিল্ম ফেস্টিভাল, বার্লিন, জার্মানি, ডকুটিআইএফএফ, তিরানা, আলবেনিয়া, ফান চিলি চলচ্চিত্র উৎসব, আর্জেন্টিনা, ফেস্টিভাল ফিল্ম রাকায়েত, ইন্দোনেশিয়া এবং অলিম্পিয়া ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল ফর চিল্ড্রেন এন্ড ইয়াং পিপল, পিরগোস, গ্রিস।

বাংলাদেশের উত্তরাঞ্চলে নওগাঁ জেলার প্রত্যন্ত এক গ্রামের ১১ বছর বয়সের তাসমিনা প্রতিবেশি এবং সহপাঠিদের মধ্যে ‘ঘোড়াওয়ালি’ নামে পরিচিত। যে দেশে ১৫ বছর বয়স হবার আগেই বেশির ভাগ মেয়ের বিয়ে হয়ে যায় সেখানে তাসমিনা আরও অন্তত পাঁচ বছর ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়ার আশা রাখে। দেশের গ্রামীণ সমাজে- যেখানে ‘বড়’ মেয়েদের মাঠে ময়দানের খেলাধুলায় অংশগ্রহণে বিস্তর আপত্তি ওঠে, সেখানে ঘোড়দৌড় তো অকল্পনীয় ব্যাপার।

তাসমিনা যখন তারচেয়ে বেশি বয়সের পুরুষ প্রতিযোগিদের পেছনে ফেলে প্রতিযোগিতায় প্রথম বা দ্বিতীয় স্থান অধিকার করে নেয়, তখন দর্শকদের অভিনন্দন বা প্রশংসা জোটে ঠিকই কিন্তু পুরস্কারের নগদ অর্থ কিংবা দামী পুরস্কারগুলো নিয়ে যান ঘোড়ার মালিক। তাই তার ইচ্ছা, টাকা যোগাড় করে একটা বড় ঘোড়া কিনেই সে প্রতিযোগিতায় অংশ নেবে। আর তখনই দেখা যাবে কে জেতে আর সব পুরস্কার কে বাড়িতে নিয়ে যায়!

পুরুষ শাসিত সমাজে তাসমিনার মতো ছোট্ট মেয়েটি সাহসী প্রতিবাদের প্রতীক। অনেক রক্তচক্ষু উপেক্ষা করে সে এগিয়ে চলেছে একটি কষ্টসাধ্য প্রায় অবিশ্বাস্য দৌড়ের শেষ প্রান্তে। মেয়েটির সাথে সাথে যারা তাকে সার্বক্ষণিক সমর্থন দিয়ে চলেছেন তাসমিনার মা ও বাবা নিঃসন্দেহে তারাও এই কৃতিত্বের অংশীদার।

(দ্য রিপোর্ট/পিএস/এপি/ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০১৭)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

জলসা ঘর এর সর্বশেষ খবর

জলসা ঘর - এর সব খবর



রে