thereport24.com
ঢাকা, শনিবার, ২৫ মার্চ ২০১৭, ১১ চৈত্র ১৪২৩,  ২৫ জমাদিউস সানি ১৪৩৮

যশোরে শুরু হয়েছে পঞ্চম জাতীয় ‘লিটল ম্যাগ’

২০১৭ মার্চ ১৭ ২১:১২:৫৫
যশোরে শুরু হয়েছে পঞ্চম জাতীয় ‘লিটল ম্যাগ’

দেবু মল্লিক, যশোর : প্রাচ্যসংঘের ক্যাম্পাস জুড়ে চলছে ‘প্রথা বিরোধী’ বাঙলা ভাষার সাহিত্যিকদের আড্ডা। ক্যাম্পাসের ভাষাণী মঞ্চে চলছে ‘ভিন্ন ধারার সাহিত্যিকদের’ চিন্তার ব্যপ্তি প্রকাশ। সুসজ্জিতভাবে সাজানো একাধিক গ্যালারিতে সাজানো হয়েছে দেশি-বিদেশি ৭৫টি ছোট কাগজের স্টল। পঞ্চভুজ আকৃতির ময়দানের মধ্যভাগেও বসছে ‘জ্ঞান বিতরণের’ স্টল। ভারতের আসাম, ত্রিপুরা, কলকাতা আর বাংলাদেশের ‘প্রতিষ্ঠান বিরোধী’ সাহিত্যিকদের এই মিলন মেলা চলবে দুই দিন।

যশোরের প্রাচ্যসংঘে পঞ্চম জাতীয় লিটল ম্যাগাজিন মেলার এই আয়োজন শুক্রবার (১৭ মার্চ) সকালে আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করার কথা ছিলো প্রবীণ সাংবাদিক ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব কামাল লোহানীর। কিন্তু তিনি অসুস্থ্যতার কারণে আসতে না পারলেও একটি লিখিত বার্তায় তিনি বলেছেন, ‘দেশের ভাষার উপর কুচক্রীদের দৃষ্টি পড়েছে। সাম্প্রদায়িকতা বাড়ছে। সেখানে লিটল ম্যাগাজিনের কর্মীদের অনেক দায়িত্ব রয়েছে।’

লিখিত বার্তাটি পাঠ করেন দিপংকর রায়। পরে মেলা আয়োজক কমিটির আহবায়ক অনিকেত শামীম আনুষ্ঠানিকভাবে মেলা উদ্বোধন করেন।

বাংলাদেশসহ ভারতের আসাম, ত্রিপুরা আর কলকাতার বরেণ্য লিটল ম্যাগাজিনের সম্পাদকরা এই মেলায় অংশ নিচ্ছেন। এই মেলা থেকে ‘সজিব চিন্তার’ সক্রিয়তা আরও বাড়বে বলে মনে করছেন আয়োজকরা। সকালে প্রাচ্যসংঘের ভাষাণী মঞ্চে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের স্বাগত বক্তব্যে এমনটিই বলেছেন পঞ্চম জাতীয় লিটল ম্যাগাজিন মেলা উদ্যাপন পর্ষদ-২০১৭ এর সদস্য সচিব বেনজীন খান।

আয়োজক কমিটির আহবায়ক অনিকেত শামীম মেলা উদ্বোধন করে বলেন, ‘২০০৭ সালে বাংলাদেশে প্রথম জাতীয় লিটল ম্যাগাজিন মেলা ঢাকায় অনুষ্ঠিত হয়। এর পরের বছরও মেলাটি হয় ঢাকায়। তবে ২০০৯ সালে প্রথম বারের মতো ঢাকার বাইরে লিটল ম্যাগাজিন মেলা বসে ময়মনসিংহে। আর ২০১০ সালে চতুর্থবারের মেলাটি হয় ঢাকার শাহবাগে। এরপর নানা কারণে লিটল ম্যাগাজিন মেলা আয়োজন করা সম্ভব হয়নি। তবে আজ (শুক্রবার) থেকে যশোরে শুরু হয়েছে লিটল ম্যাগাজিনের পঞ্চম আসর।’

এ সময় আরও বক্তব্য রাখেন আয়োজক কমিটির যুগ্ম-আহবায়ক শহিদুল আলম, অর্বাক সম্পাদক জাবির সৈকত, খড়ীমাটি সম্পাদক মনিরুল মনি, ভারতের পশ্চিমবঙ্গের দেবাশীষ দাস, ধাবমান সম্পাদক কবি কাজল কানন, ময়মনসিংহ সাহিত্য সংসদের সম্পাদক ইয়াজদানি কোরায়াসী, নৈশব্দ সম্পাদক আলী হোসেন, পশ্চিমবঙ্গের কারুভাসের সম্পাদক মানষী কীর্ত্যনিয়া, নদ’র সম্পাদক শামীম হোসেন, কবি সরজ দে, হেনরি স্বপন, ছোটকাগজ চিরকু্টের সাবেক সম্পাদক মাসুম মনোয়ার, আবুল হোসেন, রাষ্ট্রসংঘের পরিচালক মুস্তাক আহম্মেদ পলাশ, আহম্মেদ মাজহার, পশ্চিমবঙ্গের কবিতা ক্যাম্পাসের সম্পাদক অলক বিশ্বাস প্রমুখ। এর আগে সকাল ১০টার দিকে শহরে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের হবে।

মেলায় অনিকেত শামীমের সম্পাদনায় প্রকাশিত ছোটকাগজ ‘লোক’, আফসার নিজাম সম্পাদিত ‘আড্ডা’, খন্দোকার আশরাফ হোসেনের ‘একাবিংশ’, শহিদুল আহম্মেদের ‘কবি’, মিন্টু হকের ‘কাশবন’, সানাউল্লাহ সাগরের ‘কীর্তনখোলা’, শাদি ইকবালের ‘চিহ্ন’, ভারতের কলকাতার মানষী কীর্তনীয়ার ‘কারুভাষ’, ত্রিপুরার দেবব্রত দেবের ‘মুখাবয়ব’ ও আসামের সচিদানন্দ চৌধুরীর ‘একা এবং কয়েকজন’র মতো ছোট কাগজের স্টল রয়েছে। সব মিলিয়ে স্টল আছে ৭৫টির মতো ছোট কাগজের।

আয়োজকরা জানান, শনিবার (১৮ মার্চ) শেষ দিন বেলা ১১টায় মুক্ত আলোচনার বিষয় ‘ছোট কাগজ সম্পাদনা, প্রকাশনা ও বিপণন’। তিনটায় থাকছে ‘একুশ শতকের ছোট কাগজ’ বিষয়ক সেমিনার। আর বিকেল পাঁচটায় আলোচনার বিষয় হিসেবে থাকছে ‘ছোট কাগজ, পুঁজিবাদের গোলকধাঁধা বনাম ফেসবুক’। সবশেষে কবিতা পাঠের আসরের মধ্য দিয়ে ভাঙবে এই মিলন মেলা।

(দ্য রিপোর্ট/এমএইচএ/মার্চ ১৭, ২০১৭)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

জেলার খবর এর সর্বশেষ খবর

জেলার খবর - এর সব খবর



রে