thereport24.com
ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ আগস্ট ২০১৭, ২ ভাদ্র ১৪২৪,  ২৪ জিলকদ ১৪৩৮

বাড়ি নিয়ে রিট প্রত্যাহারের আবেদন মওদুদের

২০১৭ আগস্ট ০৭ ১৬:২৯:৩১
বাড়ি নিয়ে রিট প্রত্যাহারের আবেদন মওদুদের

দ্য রিপোর্ট প্রতিবেদক : রাজউক কর্তৃক ‘বিনা নোটিশে’ গুলশানের বাড়ি থেকে উচ্ছেদ কার্যক্রমের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে দায়ের করা রিট প্রত্যাহার চেয়ে আবেদন করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ।

বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি জে বি এম হাসানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চে এ আবেদন করা হয়েছে। মওদুদ আহমদের আইনজীবী ব্যারিস্টার আবদুল্লাহ আল মাহমুদ বলেন, এই বাড়ি নিয়ে নিম্ন আদালতে একটি দেওয়ানী মামলা থাকায় আমরা হাইকোর্ট থেকে মামলা প্রত্যাহার চেয়ে আবেদন করেছি। আগামীকাল (মঙ্গলবার) এই আবেদনের উপর শুনানি হবে।

মওদুদ আহমেদের করা রিভিউ খারিজ করে সর্বোচ্চ আদালতের রায়ের পর গত ৭ জুন গুলশান-২ এর ৭৯ নম্বর সড়কের ১৫৯ নম্বর প্লটের বাড়ির মালামাল উচ্ছেদ করে বাড়িটি নিয়ন্ত্রণ নেয় রাজউক।

বিনা নোটিশে বাড়ি থেকে উচ্ছেদের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে পরদিন ৮ জুন হাইকোর্টে রিট দায়ের করেন মওদুদ আহমদ। রিট আবেদনে উচ্ছেদ অভিযানের বৈধতা চ্যালেঞ্জ ছাড়াও গুলশান এভিনিউয়ের ১৫৯ নম্বর হোল্ডিংয়ে ওই বাড়ির নকশায় কোনো ধরনের পরিবর্তন না করা এবং পজেশন ফিরিয়ে দেওয়ার জন্য দুটি অন্তর্বতীকালীন আদেশ চাওয়া হয়।

ওই দিনই রিট আবেদনের উপর শুনানি শুরুর পর বিচারপতি সৈয়দ মোহাম্মদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি মো. আতাউর রহমান খানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ ২ জুলাই পর্যন্ত মামলাটি মুলতবির আদেশ দেন। পরে দুই ২ জুলাই মামলাটি কার্যতালিকায় আসলে মওদুদের আবেদনের প্রেক্ষিতে তা কার্যতালিকা থেকে বাদ দেন আদালত।

বর্তমানে রিট আবেদনটি বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরীর নেতৃত্বাধীন হাইকোর্টের দ্বৈত বেঞ্চে মুলতবি রয়েছে।

ওপর ওই বাড়ির প্রকৃত মালিক ছিলেন পাকিস্তানি নাগরিক মো. এহসান। ১৯৬০ সালে তৎকালীন ডিআইটির কাছ থেকে তিনি ওই বাড়ির মালিকানা পান।

১৯৬৫ সালে বাড়ির মালিকানার কাগজপত্র এহসানের স্ত্রী অস্ট্রিয়ার নাগরিক ইনজে মারিয়া প্লাজের নামে নিবন্ধন করা হয়। ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধ শুরু হলে এহসান স্ত্রীসহ ঢাকা ত্যাগ করেন। তারা আর ফিরে না আসায় ১৯৭২ সালে এটি পরিত্যক্ত সম্পত্তির তালিকাভুক্ত হয়।

ওই বছরই মওদুদ ওই বাড়ির দখল নেন। কিন্তু ইনজে মারিয়া প্লাজের মৃত্যুর পর ‘ভুয়া’ আমমোক্তারনামা তৈরি করে মওদুদের ভাই মনজুর আহমদের নামে ওই বাড়ির দখল নেওয়া হয়েছে অভিযোগ এনে দুদক মামলা করলে চার বছর আগে শুরু হয় আইনি লড়াই।

মওদুদ সর্বোচ্চ আদালত পর্যন্ত গেলেও রায় তার বিপক্ষে যায়। বিএনপির স্থায়ী কমিটির এই সদস্য আপিলের রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন করলেও তা খারিজ হয়ে গেলে উচ্ছেদ অভিযান চালায় রাজউক।

(দ্য রিপোর্ট/কেআই/এপি/আগস্ট ০৭, ২০১৭)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

রাজনীতি এর সর্বশেষ খবর

রাজনীতি - এর সব খবর



রে