thereport24.com
ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০ আশ্বিন ১৪২৫,  ১৪ মহররম ১৪৪০

এশিয়ান গেমসের উদ্বোধন আজ

২০১৮ আগস্ট ১৮ ১৩:৪৩:০৬
এশিয়ান গেমসের উদ্বোধন আজ

দ্য রিপোর্ট ডেস্ক : ১৮তম এশিয়ান গেমসের উদ্বোধনী শনিবার (১৮ আগস্ট) অনুষ্ঠান হচ্ছে জাকার্তার গেলোরা বুং কার্নো (জিবিকে)স্টেডিয়ামে। রেকর্ড অর্থ খরচ করে এবারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান এশিয়াডের ইতিহাসে সেরা করার আয়োজন সেরে ফেলেছে ইন্দোনেশিয়া।

বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা ৬টায় শুরু হবে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। ইন্দোনেশিয়ার রাষ্ট্রপতি জোকে উইদোদোর ঘোষণার মধ্য দিয়ে উদ্বোধন হবে এবারের এশিয়ান গেমসের। এরপর মার্চপাস্ট।

৪৫ দেশের প্রায় সাড়ে ছয় হাজার অ্যাথলেট মার্চপাস্টে অংশ নেবেন। বাংলাদেশের লাল-সবুজ পতাকা থাকবে ২০১৬ এসএ গেমসের স্বর্ণজয়ী ভারোত্তোলক মাবিয়া আক্তার সীমান্তর হাতে। অলিম্পিকের পর এবারও একই পতাকায় অংশ নিয়ে আগ্রহের কেন্দ্রে বৈরী ভাবাপন্ন দুই কোরিয়াও। জাকার্তার মূল ভেন্যু গোরা বুকার্নোতে চলবে চার ঘণ্ডার বর্ণিল অনুষ্ঠান। থাকবে আতশবাজির ঝলকানি। আসরের মূল বাজেটের ১০ শতাংশ ব্যয় হবে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ফুটে উঠবে ইন্দোনেশিয়ার প্রকৃতি আর হাজার বছরের পুরনো ঐতিহ্য। পুরো স্টেডিয়াম ছেয়ে যাবে ১২০ মিটার দৈর্ঘ্য এবং ৩০ মিটার প্রস্থ আর ২৬ মিটারের বিশাল ক্যানভাসে। দুই শতাধিক বাদকের ভুবন ভোলানো সুরের তালে নৃত্যে মেতে উঠবেন চার হাজার শিল্পী। মাতাবেন মাঠে উপস্থিত ৮০ হাজার এবং টিভি সেটের সামনের ৩০০ কোটি দর্শককে? বেজে উঠবে আসরের থিম সং ‘মেরয় বিতাং’- মানে, ‘ছুটে চলো তারার পানে’। থিম সং পরিবেশন করবেন উইজ্জি, তুসলু আর আঙ্গুনের মতো বিশ্বখ্যাত শিল্পীরা। বিশ্ববিখ্যাত কোরিওগ্রাফার সুপ্রিয়ান্তো আর ড্যান মালিকের দীর্ঘ আড়াই মাসের শ্রম আর পরিচালক ভিষ্ণুমাতার তুলির আঁচড়ে এক সুতোয় গাঁথবে গোটা অনুষ্ঠান। গান গাইবেন গ্রেমি অ্যাওয়ার্ডের জন্য মনোনীত সঙ্গীতশিল্পী জোয়ে আলেক্সান্ডার। ১৯৯২ বার্সেলোনা অলিম্পিক গেমসে সোনাজয়ী দুই শাটলার আলান বুদিকুসুমা এবং সুসি সুসান্তি গেমসের মর্যাদাপূর্ণ মশাল বহন করবেন বলে জানা গেছে। একই আসরে সোনাজয়ী দুই শাটলার এখন পারিবারিক বন্ধনে আবদ্ধ। স্বামী-স্ত্রী মিলেই জ্বালাবেন গেমস উদ্বোধনের আলো।

এশিয়ান গেমসের আগের উদ্বোধনী ও সমাপনী অনুষ্ঠানের মান ধরে রাখতে প্রত্যয়ী ইন্দোনেশিয়া। তাই উদ্বোধন ও সমাপনী অনুষ্ঠানের বাজেট ৫৫ মিলিয়ন ডলার। জিবিকের মূল মঞ্চ তৈরি হয়েছে ১২০ মিটার লম্বা, ৩০ মিটার প্রস্থ আর ২৬ মিটার উঁচু। পেছনে ইন্দোনেশিয়ার ঐতিহ্যবাহী দ্বীপ, ফুল আর পাহাড়ের চিত্র। প্রতিটি গেমসেই এ ধরনের অনুষ্ঠানে পারফরমাররা ফুটিয়ে তোলেন স্থানীয় সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য। ইন্দোনেশিয়াও ব্যতিক্রম নয়। দ্বীপ, পাহাড়, সমুদ্র, আদিবাসীদের জীবন, সংস্কৃতি- এসবই মুখ্য আজকের অনুষ্ঠানে। থাকছেন ইন্দোনেশিয়ার বিখ্যাত সঙ্গীতশিল্পী আনগুন, রাইসা, তুলুস, কনডোলোগিটরা। আছেন সঙ্গীত পরিচালক আডি এমএস ও রোনাল্ড ইউনার্ডি। নৃত্য পরিচালনায় ড্যানি মালিক, ইকো সুপ্রিয়ান্তো আর ফ্যাশন ডিজাইনার ডাইনাড ফারিজ, রিনাল্ডি ইউনার্ডিরা থাকায় পুরো অনুষ্ঠান মনোমুগ্ধকর হবে বলে বিশ্বাস আয়োজক কমিটির মুখপাত্র ফ্রান্সিস ওয়ানান্দির।

৪৫ দেশের ১৪ হাজারের বেশি অ্যাথলেট অংশ নিচ্ছেন এবারের এশিয়ান গেমসে। যার মধ্যে ১৪ ইভেন্টে বাংলাদেশের ১১৭ জনও। তাদের সঙ্গে পুরো বিশ্ব এবারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানটা মনে রাখবে বলে জানালেন আয়োজক কমিটির প্রধান এরিক তোহির।

(দ্য রিপোর্ট/এনটি/আগস্ট ১৮, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

খেলা এর সর্বশেষ খবর

খেলা - এর সব খবর



রে