thereport24.com
ঢাকা, বুধবার, ২১ নভেম্বর ২০১৮, ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৫,  ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

‘বন্দুকযুদ্ধে’ ২ জেলায় নিহত ৩

২০১৮ সেপ্টেম্বর ১১ ১১:৫৪:৪৯
‘বন্দুকযুদ্ধে’ ২ জেলায় নিহত ৩

নারায়ণগঞ্জ ও রাজশাহী প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জ জেলার বন্দর ও রূপগঞ্জে এবং রাজশাহীর মোহনপুর জেলায় পৃথক ‍‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনায় তিনজন হয়েছেন।

নারায়ণগঞ্জে মঙ্গলবার (১১ সেপ্টেম্বর) ভোরে ও রাজশাহীতে সোমবার (১০ সেপ্টেম্বর) দিনগত রাতে এসব ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা ঘটে।

নারায়ণগঞ্জ (বন্দর) : নারায়ণগঞ্জের বন্দরের সোনাচোরা এলাকায় পুলিশের সঙ্গে 'বন্দুকযুদ্ধে' এক ডাকাত নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। সোনাচোরা এলাকার মহিউদ্দিনের বাড়ির পাশে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে মঙ্গলবার ভোরে ওই 'বন্দুকযুদ্ধের' ঘটনা ঘটে।

নিহতের নাম ইব্রাহিম (৪২)। তার বাড়ি রূপগঞ্জ উপজেলায় বলে জানা গেছে। এ সময় এস আই সাইয়াদুল, এ এস আই ইলিয়াছ খানসহ পুলিশের ৩ সদস্য আহত হন।

বন্দর থানার ওসি একেএম শাহীন মন্ডল সাংবাদিকদের জানান, ১০/১২ জনের একটি ডাকাত দল বন্দরের সোনাচোরা এলাকায় ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। এ সময় ডাকাতরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। এরপর পুলিশ পাল্টা গুলি চালালে ডাকাতরা পিছু হঠে। পরে ঘটনাস্থলে এক ডাকাতকে পড়ে থাকতে দেখে পুলিশ। তাকে বন্দর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। ঘটনাস্থল থেকে ককটেল ও ধারালো ছুরি উদ্ধার করা হয়।

নারায়ণগঞ্জ (রূপগঞ্জ): নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে ডাকাতির মালামাল ভাগাভাগির দ্বন্দ্বে ডাকাতের গুলিতে দেলোয়ার হোসেন ওরফে রাজা নামে এক ডাকাত নিহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার (১১ সেপ্টেম্বর) ভোরে উপজেলার পূর্বাচল ৮ নম্বর সেক্টরে এ ঘটনা ঘটে। রাজা ঢাকার গেন্ডারিয়া এলাকার ফুল মিয়ার ছেলে।

রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান মনির জানান, ভোরে গুলির শব্দে স্থানীয়রা সংবাদ দিলে ঘটনাস্থল থেকে এক ডাকাতের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ডাকাতির মালামাল নিয়ে দ্বন্দ্বেই অন্য ডাকাত দলের গুলিতে তিনি নিহত হয়েছেন বলে জানা গেছে।

ঘটনাস্থল থেকে একটি শ্যুটার গান ও এক রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

রাজশাহী : রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার পাকুরিয়ায় র‌্যাবের সঙ্গে গুলি বিনিময়ের ঘটনায় এক মাদক বিক্রেতা নিহত হয়েছেন।

সোমবার (১০ সেপ্টেম্বর) দিনগত রাতের ওই ঘটনায় নিহত মাদক বিক্রেতার নাম দুলাল মিয়া (৪৫)। তিনি উপজেলার হরিহর গ্রামের মৃত ইব্রাহীমের ছেলে।

ঘটনাস্থল থেকে ৫০৬ পিস ইয়াবা, একটি বিদেশি পিস্তল, এক রাউন্ড গুলি ও একটি ম্যাগজিন উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতের মরদেহ বর্তমান মোহনপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রাখা হয়েছে।

র‌্যাব-৫ এর উপ-অধিনায়ক এএফএম আশরাফুল ইসলাম জানান, সোমবার দিনগত গভীর রাতে মোহনপুরে টহলের সময় কমপক্ষে ১০ জনের একটি দল ঘটনাস্থলে র‌্যাব সদস্যদের দেখে পালাতে চেষ্টা করে। র‌্যাব সদস্যরা তাদের পিছু নিলে তারা গুলি ছুড়ে। এ সময় র‌্যাব সদস্যরা পাল্টা গুলি চালায়। অন্যরা পালাতে সক্ষম হলেও দুলাল মিয়াকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখা যায়। পরে তাকে উদ্ধার করে মোহনপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগে নেওয়া হলে চিকিৎসকরা মৃত ঘোষণা করেন।

তিনি আরও জানান, নিহত মাদক ব্যবসায়ী দুলাল মিয়ার মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হবে। তবে মরদেহ বর্তমানে সেখানেই রাখা হয়েছে।

(দ্য রিপোর্ট/এনটি/সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

জেলার খবর এর সর্বশেষ খবর

জেলার খবর - এর সব খবর