thereport24.com
ঢাকা, শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, ১ অগ্রহায়ণ ১৪২৫,  ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

গাজায় যুদ্ধাপরাধ তদন্তে বিশেষজ্ঞদের নাম ঘোষণা

২০১৪ আগস্ট ১২ ১২:৩৫:৫২
গাজায় যুদ্ধাপরাধ তদন্তে বিশেষজ্ঞদের নাম ঘোষণা

দ্য রিপোর্ট ডেস্ক : ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় ‘অপরাশেন প্রোটেক্টিভ এজ’ নামে ইসরায়েলি সামরিক হামলায় সম্ভাব্য মানবাধিকার লঙ্ঘন ও বিবদমান দুই পক্ষের মাধ্যমে সংগঠিত যুদ্ধাপরাধের তদন্তে বিশেষজ্ঞদের নাম ঘোষণা করেছে জাতিসংঘ।

জাতিসংঘ সোমবার এক বিবৃতিতে আন্তর্জাতিক কমিশন গঠন করে বিশেষজ্ঞদের নাম ঘোষণা করে।

একটি স্বাধীন দল গাজায় সংঘটিত যুদ্ধাপরাধ তদন্ত করবে উল্লেখ করে জাতিসংঘের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘২০১৪ সালের ১৩ জুন গাজায় সংঘটিত ইসরায়েলি সামরিক হামলার প্রেক্ষাপটে আন্তর্জাতিক মানবিক আইন ও আন্তর্জাতিক মানবাধিকার আইন লঙ্ঘনের সব বিষয় তদন্তের আওতায় আনা হবে।’

আন্তর্জাতিক আইনবিষয়ক কানাডিয়ান অধ্যাপক উইলিয়াম স্ক্যাবাসকে তদন্ত কমিটির প্রধান নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। কমিটির অন্য সদস্যদের মধ্যে রয়েছেন- সেনেগালের নাগরিক জাতিসংঘের অভিজ্ঞ মানবাধিকার বিশেষজ্ঞ দৌদৌ দিয়েন এবং যুক্তরাজ্য ও লেবাননের আইনজীবী অমল আলামুদ্দিন।

তবে তদন্তকাজে অংশ নিতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন আলামুদ্দিন।

জাতিসংঘের নিরাপত্তা কাউন্সিলের কাছে ২০১৫ সালের মার্চের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দেবে তদন্ত কমিটি।

এদিকে জাতিসংঘের মানবাধিকার কমিশনের এই ঘোষণার প্রতিক্রিয়ায় বিষয়টিকে ‘ক্যাঙ্গারু কোর্ট’ অবিহিত করে তদন্তের সিদ্ধান্তকে অগ্রাহ্য করেছে ইসরায়েল।

অন্যদিকে জাতিসংঘের এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছে হামাস। হামাসের মুখপাত্র সামি আবু জুহুরি এ প্রসঙ্গে বলেন, ‘গাজায় ইসরায়েলি আগ্রাসনে যে যুদ্ধাপরাধ সংঘটিত হয়েছে, তা খতিয়ে দেখতে জাতিসংঘের তদন্ত কমিটি গঠনের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানাচ্ছে হামাস। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব এই কমিটিকে তদন্ত আরম্ভ করার দাবিও জানাচ্ছে হামাস।’

গাজায় সামরিক হামলার সময় ইসরায়েল ইচ্ছাকৃতভাবে আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘন করেছে বলে গত ৩১ জুলাই অভিযোগ করেছিলেন জাতিসংঘের শীর্ষ মানবাধিকার বিষয়ক কর্মকর্তা নাভি পিল্লাই। ইসরায়েলি বাহিনীর সম্ভাব্য যুদ্ধাপরাধের জন্য বিশ্বের শক্তিধর রাষ্ট্রগুলোও কৈফিয়ৎ দিতে বাধ্য বলেও মন্তব্য করেছেন নাভি পিল্লাই।

বেসামরিক নাগরিকদের বাড়ি, স্কুল, হাসপাতাল, গাজার একমাত্র বিদ্যুৎকেন্দ্র ও জাতিসংঘ পরিচালিত শরণার্থী শিবিরে হামলা চালিয়ে ইসরায়েলি বাহিনী জেনেভা কনভেনশন লঙ্ঘন করেছে বলে অভিযোগ করেন নাভি পিল্লাই। একই সঙ্গে হামাসের সদস্যরা ইসরায়েলের ভূখণ্ডে রকেট হামলা চালিয়ে আন্তর্জাতিক মানবিক আইন লঙ্ঘন করেছে বলে অভিযোগ করেন তিনি।

প্রসঙ্গত, ইসরায়েলের ভূখণ্ডে হামাসের রকেট হামলার প্রতিক্রিয়ায় প্রায় এক মাস ধরে চলা ইসরায়েলি সামরিক হামলায় কমপক্ষে ১৯৪৫ জন ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন। অপরদিকে এই সংঘাতে প্রাণ হারিয়েছেন ৬৭ ইসরায়েলি। সূত্র : আল জাজিরা

(দ্য রিপোর্ট/আরজে/কেএন/এজেড/আগস্ট ১২, ২০১৪)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

বিশ্ব এর সর্বশেষ খবর

বিশ্ব - এর সব খবর