thereport24.com
ঢাকা, সোমবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৮, ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৫,  ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

ওবামা ও ক্যামেরনের ‘সেলফি’ নিয়ে তোলপাড়

২০১৩ ডিসেম্বর ১১ ১১:২৮:৪০
ওবামা ও ক্যামেরনের ‘সেলফি’ নিয়ে তোলপাড়

দ্য রিপোর্ট ডেস্ক : বিশ্বের ক্ষমতাধর ব্যক্তিরাও সাধারণ মানুষ। দায়িত্বের আড়ালে চাপা পড়ে যায় তাদের সাধারণ মানুষের মতো জীবনাচরণ। অনেক সময় হয়ত নানা ফাঁকফোকর দিয়ে প্রকাশিত হয় তাদের আটপৌরে জীবনের কিছু ঘটনা।

নেলসন ম্যান্ডেলার স্মরণানুষ্ঠানে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা, ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরন ও ডেনমার্কের প্রধানমন্ত্রী হেলি থরনিং স্মিডের একটি সেলফি (নিজের ছবি নিজে তোলা) তোলার সময়কার ছবি নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে।

স্মিডের তোলা ছবিতে দেখা গেছে, জোহানেসবার্গের সকার সিটি স্টেডিয়ামে ডেনমার্কের প্রধানমন্ত্রী হেলি থরনিং তার স্মার্টফোন নিয়ে ওবামা ও ডেভিড ক্যামেরনের সঙ্গে ছবি তুলছেন। হেলি থরনিংকে ছবি তোলার ব্যাপারে সাহায্য করছেন ওবামা। তারা তিনজনই হাসিমুখে ছবি তোলার জন্য পোজ দিচ্ছিলেন।

তবে ওবামার পাশে বসে থাকা মিশেল কিন্তু স্বামীর সঙ্গে ‘সেলফি’ তোলায় যোগ দেননি। তিনি ম্যান্ডেলার স্মরণানুষ্ঠানের দিকেই বেশি মনোযোগী ছিলেন।

এদিকে ওবামা, ক্যামেরন ও হেলি থরনিংয়ের ‘সেলফি’ তোলার ছবিটি মুহূর্তেই জায়গা করে নেয় আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলোতে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতেও এ নিয়ে শুরু হয় তোলপাড়। অনেকেই আবার প্রশ্ন তুলেছেন এমন একটি অনুষ্ঠানে এ রকম হাসিমুখে ছবি তোলা আদৌ যুক্তিসঙ্গত কিনা?

এদিকে এ ব্যাপারে হোয়াইট হাউস কিংবা ডাউনিং স্ট্রিট থেকে কোনো মন্তব্য করা হয়নি। নিশ্চুপ রয়েছে কোপেনহেগেনও।

ফটোগ্রাফার রবার্তো স্মিড তার তোলা ছবিটির ব্যাপারে বলেন, তিন দেশের রাষ্ট্রপ্রধানের ছবিটি একটি দুলর্ভ মুহূর্তকেই প্রতিফলিত করছে।

তিনি বলেন, ‘সাধারণ মানুষদের কাতারে এই রাজনৈতিক নেতাদের দেখতে পারাটা সত্যিই মজার। কারণ আমরা সাধারণত তাদের নিয়ন্ত্রিত পরিবেশে দেখি। তবে এটা তেমন কোনো বিষয়ই হতো না যদি গণমাধ্যম তাদের আরো কাছে যাওয়ার সুযোগ পেত। তাহলে হয়তো আমরা বুঝতে পারতাম তারা আমাদের মতোই সাধারণ মানুষ।’ সূত্র : এএফপি

(দ্য রিপোর্ট/কেএন/শাহ/এইচএসএম/ডিসেম্বর ১১, ২০১৩)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

বিশ্ব এর সর্বশেষ খবর

বিশ্ব - এর সব খবর