thereport24.com
ঢাকা, শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৬ আশ্বিন ১৪২৫,  ১০ মহররম ১৪৪০

সমাপনী ডিক্লারেশন ও ফটোসেশন ৪টায়

২০১৪ নভেম্বর ২৭ ১৪:৪৭:৪৯
সমাপনী ডিক্লারেশন ও ফটোসেশন ৪টায়

দক্ষিণ এশিয়ার শীর্ষ ৬ নেতা অবকাশ যাপন শেষে আবার কাঠমান্ডুর রাষ্ট্রীয় অতিথি গৃহের দিকে রওনা দিয়েছেন। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও নেপালের প্রধানমন্ত্রী সুশীল কৈরালা সেখানে ছিলেন না।

বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টায় কাঠমান্ডুর সয়েলটির হোটেল ক্রাউন সংলগ্ন রাষ্ট্রীয় অতিথি গৃহে সার্কের সমাপনী অনুষ্ঠান শুরু হবে। শেষ হবে বিকেল সাড়ে ৪টায়।

জানা গেছে, সমাপনী অনুষ্ঠানের শুরুতেই ১৯তম সার্কের স্থান ও তারিখ নির্ধারণ করা হবে। এরপর ঘোষণা করা হবে সার্কের কাঠমান্ডু ঘোষণা। এরপরই নেপালের প্রধানমন্ত্রী সমাপনী ভাষণ দেবেন। এরপর ১৯তম সার্কের আয়োজক দেশ পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ সার্কভুক্ত দেশসমূহকে আমন্ত্রণ জানিয়ে স্বাগত ভাষণ দিবেন। এরপরই হবে ফটোসেশন।

সার্ক সেক্রেটারিয়েট এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, সমাপনী অনুষ্ঠান শেষে সার্কের সার্বিক অর্জন ও কাঠমান্ডু ঘোষণা নিয়ে সংবাদ সম্মেলন করবেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী ও সার্কের চেয়ারম্যান সুশীল কৈরালা।

এর আগে বৃহস্পতিবার সকালে কাঠমান্ডু থেকে ১৩ কিলোমিটার দূরে নেপালের অন্যতম নয়নাভিরাম ধুলিখেলের ‘দাওয়ারিকা রিসোর্ট’ যান সার্কভুক্ত ৬টি দেশের শীর্ষ নেতা। তবে সেখানে যাননি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

সমাপনী অনুষ্ঠানে থাকছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ, ভুটানের প্রধানমন্ত্রী শেরিন তোবগে, মালদ্বীপের প্রেসিডেন্ট আবদুল্লাহ ইয়ামিন আবদুল গাইয়ুম, শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট মাহেন্দ্র রাজা পাকসে, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্ট আশরাফ ঘানি।

প্রসঙ্গত, এবার সার্কের শীর্ষ সম্মেলন আলোচিত বহুমাত্রিক যোগাযোগ ও জ্বালানি সংক্রান্ত তিনটি চুক্তির একটিও হচ্ছে না। ফলে অনেকটা আনুষ্ঠানিকতার মধ্যেই সীমাবদ্ধ রইলো সম্মেলনটি।

(দ্য রিপোর্ট/সাআ/জেএম/এইচ/নভেম্বর ২৭, ২০১৪)

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

সার্ক সম্মেলন এর সর্বশেষ খবর

সার্ক সম্মেলন - এর সব খবর



রে