thereport24.com
ঢাকা, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১,  ১৪ জিলহজ ১৪৪৫

রেফারিকে গালাগালি,শাস্তির মুখে মরিনহো

২০২৩ জুন ০৩ ১৮:১৯:২৯
রেফারিকে গালাগালি,শাস্তির মুখে মরিনহো

দ্য রিপোর্ট ডেস্ক:ম্যাচে হারের পর অভিজ্ঞ কোচ জোসে মরিনহোর মেজাজ হারানো নতুন কোনো ঘটনা নয়। এমন আচরণের কারণে আগেও শাস্তির কবলে পড়েছিলেন। এবার আরও একবার সেই ঘটনার পুনরাবৃত্তি করলেন রোমার এ কোচ।

সবশেষ ইউরোপা লিগ ফাইনাল শেষে রেফারি এন্থনি টেইলরের উদ্দেশ্যে অপমানজনক ও অশালীন ভাষা ব্যবহারের অভিযোগ উঠে তার বিরুদ্ধে। এ ছাড়া রেফারির সিদ্ধান্তকে অগ্রাহ্য করার অভিযোগে হলুদ কার্ড দেখেন তিনি।

এ ম্যাচে নির্ধারিত সময়ের পর অতিরিক্ত সময়েও ১-১ গোলে ড্র থাকার পর পেনাল্টিতে ৪-১ ব্যবধানে হারিয়ে শিরোপা জয় করে সেভিয়া। এরপর প্রাক-ম্যাচ সংবাদ সম্মেলনে টেইলরের সমালোচনা করেন মরিনহো। এবার এ ঘটনায় কড়া শাস্তি পাচ্ছেন তিনি।

এদিকে সমর্থক ও খেলোয়াড়দের আচরণের কারণে উভয় দলের বিরুদ্ধেই অভিযোগ এনেছে উয়েফা। দুই দলই আইনের বাইরে গিয়ে মাঠের ভিতর বিভিন্ন ধরনের বস্তু ছুঁড়ে মেরেছে, এ ছাড়া আতশবাজিও ফুটিয়েছে।

এ ঘটনায় তীব্র নিন্দা জানিয়ে উয়েফা বলছে, ভবিষ্যতে ম্যাচ পরিচালনাকারী রেফারিদের জন্য স্থানীয় পুলিশের সহায়তায় নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরও জোরদার করা হবে। এ ধরনের আচরণ কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। এটা ফেয়ার প্লে’র চেতনা ও একই সঙ্গে উয়েফা যে সম্মান ধরে রাখতে চায়, তাকে ক্ষুণ্ন করে। একটি ম্যাচের আবহ ও স্বচ্ছতা ধরে রাখার নিশ্চয়তায় রেফারি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকেন। আর সে কারণেই তাদের নিরাপত্তা ও সুস্থতা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

অন্যদিকে মাঠের আইন ভঙ্গ করায় সেভিয়ার বিরুদ্ধে অতিরিক্ত আরও কিছু অভিযোগ আনা হয়েছে। আর সমর্থকদের বাধা দেওয়ার পিছনে রোমাকে দায়ী করা হয়েছে।

এ ম্যাচে দুই দল মিলিয়ে সর্ব মোট ১৩ জন খেলোয়াড়কে হলুদ কার্ড দেখিয়েছেন টেইলর। এর মধ্যে রোমার সাতজন খেলোয়াড় রয়েছেন। অস্বাভাবিকভাবে প্রচুরসংখ্যক ফাউলের কারণে ম্যাচের গতি প্রায়ই নষ্ট হয়েছে। এ জন্য ম্যাচটি শেষ হতেও বিলম্ব হয়েছে।

এ ছাড়া ম্যাচ শেষে বুদাপেস্ট বিমানবন্দরে রোমা সমর্থকদের তোপের মুখে পড়েন ইংলিশ এ রেফারি। এ সময় টেইলরের সঙ্গে তার পরিবারও ছিল। পরিস্থিতি বিবেচনায় তাদেরকে শেষ পর্যন্ত বিমানবন্দর নিরাপত্তা রক্ষাকারী বাহিনীর সহায়তা নিতে হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে রেফারিদের পেশাদার সংগঠন পিজিএমওএল বলেছে, উয়েফা ইউরোপা লিগের ফাইনাল শেষে এন্থনি ও তার পরিবার বাড়ি ফিরে যাবার সময় তাদের প্রতি যে ধরনের অযৌক্তিক এবং ঘৃণ্য অপব্যবহার করা হয়েছে, সেজন্য আমরা আতঙ্কিত।

পাঠকের মতামত:

SMS Alert

খেলা এর সর্বশেষ খবর

খেলা - এর সব খবর